TOP বিনোদন

ছবির রিভিউতে এ কি কমেন্ট করে বসলেন মিয়া খালিফা!

Loading...

পর্ন ওয়েবসাইটের তিনি জনপ্রিয় মুখ। তাঁর শরীরী লাস্যে দর্শকদের অ্যাড্রিনালিন ক্ষরণ বাড়ে। যতদিন যাচ্ছে, সোশ্যাল মিডিয়ায় তাঁর ফলোয়ারের সংখ্যা বেড়েই চলেছে। সাধারণত তাঁর কোনও পোস্ট ঘিরে ভক্তদের প্রতিক্রিয়া থাকে বেশ ইতিবাচক। কিন্তু এবার তিনি যা করলেন, তাতে সোশ্যাল সাইটে হাসির খোরাক হতে হল তাঁকে। কথা হচ্ছে পর্নস্টার মিয়া খালিফার।

সম্প্রতি মুক্তি পেয়েছে পরিচালক ক্রিস্টোফার নোলানের ছবি ডানকার্ক। ১৯৪০ সালে প্রায় সাড়ে তিন লক্ষ ব্রিটিশ সেনা ফেঁসে গিয়েছিল ফ্রান্সের ডানকার্ক উপকূলে। জার্মানির আক্রমণ থেকে সেই সেনাদের জলপথেই উদ্ধার করা হয়েছিল। ঐতিহাসিক সেই ঘটনা ‘অপারেশন ডায়নামো’ নামে পরিচিত। সেই ছবিরই রিভিউ দিয়েছেন মিয়া খালিফা। ছবিটি তাঁর কেমন লেগেছে, সে ব্যাপারে মতামত জানিয়ে ইউটিউবে একটি ভিডিও পোস্ট করেছেন। আর তারপরই সেই রিভিউ নিয়ে শুরু হয়েছে হাসি-ঠাট্টা। মিয়া খালিফা প্রথমেই জানিয়ে দেন, পরিচালককে ভালই লাগে তাঁর। কিন্তু জানানোর কায়দা এক্কেবারে আলাদা। টুইটারে লেখেন, নিজের পোষ্য কুকুরগুলোর থেকেও ক্রিস্টোফারকে বেশি ভাল লাগে তাঁর। কিন্তু ছবিটি তার বিশেষ ভাল লাগেনি। বলছেন, বুঝলাম না উদ্ধারকার্য ২৩ ঘণ্টাতেই শেষ হয়েছিল নাকি দু’মাস সময় লেগেছিল। তবে ‘অপারেশন ডায়নামো’ নিয়ে যে তাঁর কোনও ধারণা নেই, তাঁর কথাতেই তা স্পষ্ট। মিয়া খালিফার বক্তব্য, “জানি না এটা দ্বিতীয় বিশ্বযুদ্ধ শেষের কোনও ঘটনা নাকি এমনিই নানা ঘটনার মধ্যে একটা।” আর এতেই পর্নস্টারকে নিয়ে সমালোচনার ঝড় ওঠে।

comment ছবির রিভিউতে এ কি কমেন্ট করে বসলেন মিয়া খালিফা!

এক নেটিজেন লিখেছেন, “অনেক রিভিউ শুনেছি। এটা তার মধ্যে সবচেয়ে খারাপ।” আবার অনেকেরই প্রশ্ন, ডানকার্ক সম্পর্কে কিছু না জেনে এই ছবির রিভিউ দেওয়ার কী প্রয়োজন ছিল? অন্য এক নেটিজেনের মতে, ভিডিওর ৬ মিনিট দর্শক ও নিজেকে লজ্জায় ফেলেছেন মিয়া খালিফা। ছবিকে তিনি দশের মধ্যে সাত দিয়েছেন। কিন্তু তাঁর ফলোয়ারদের মতে, যে নিম্নমানের রিভিউর ভিডিও তিনি পোস্ট করেছেন, তারপর আর তাঁর দেওয়া রেটিংয়ের মাধ্যমে সেই ছবি বিচার করা সম্ভব নয়।

গতকালের সেরা খবরগুলো:

Loading...

Comments

comments