TOP সোশ্যাল

এই পিতা যা করলেন তা দেখে আপনি অবাক হতে বাধ্য!

Loading...

অলৌকিক এক ঘটনার পরে এ শিশু জন্ম গ্রহণ করে। সকল গরিমা মা কে দেওয়া হয় এবং তা ঠিকই। তার সমস্ত রক্ত, ঘাম এবং অশ্রুপাতের ফলে তার মূল্যবান এক সন্তানের জন্ম দেন , তাদের অবশ্যই এটি প্রাপ্য। কিন্তু মাঝে মাঝে, আমাদের পিতাদের প্রতি আমাদের মনোযোগ কেন্দ্রীভূত করতে হবে, যারা প্রায়ই স্পটলাইটটি গ্রহণ করে না।

ফটোগ্রাফার জয়দেন ফ্রুন্ড এই জীবনে একটা করেন। তিনি সম্প্রতি একটি শিশুর জন্ম ক্যাপচার করার জন্য একটি কানাডিয়ান হাসপাতালে গিয়েছিলেন, এবং শিশুর মা তার পরিবর্তে তার স্বামীর উপর বেশি নজর দিতে বলেন, এবং ফলাফল অবিশ্বাস্য!

admin-panel-image-b298ba4a-014e-462e-bd06-0d41e0d83dcc-1521784041337_gin7qj এই পিতা যা করলেন তা দেখে আপনি অবাক হতে বাধ্য!

অপারেশন কি সফল ?

জ্যোডেনের মতে, শিশুর জন্মের ছবি গুলোতে দেখা যায় , যেমনটা প্রত্যেক মা তার শিশুর জন্ম দেওয়ার জন্য ভিন্ন ভিন্ন উপায়ে এগিয়ে আসছেন, প্রতিটি পিতা ও ভিন্নভাবে তার সন্তানের জন্মের সময়ে এগিয়ে যান। “কখনও কখনও, যখন তাদের সঙ্গিনী চরম প্রসব যন্ত্রনা সহ্য করে তখন পিতারা নিঃশেষে অসহায় বোধ করে , তারা একটি কোণে, শান্তভাবে থাকে “। অন্যরা, যারা পরিস্থিতির সামনে থাকে , তারা সকলে অংশীদার হইয়া তারা তাদের সব সমর্থন পিতাকে প্রদান করে.

admin-panel-image-cec086e8-fd91-4af6-b085-df11b7fbe3a0-1521784085695_yahpxq এই পিতা যা করলেন তা দেখে আপনি অবাক হতে বাধ্য!

জ্যোডেনের বলছেন, আপনার সন্তানের জন্মের সময় উপস্থিত হওয়া এবং দেখাশুনা করার চেয়ে আরো বেশি অনুপ্রেরণামূলক কিছু নেই.

অধিকাংশ নতুন মায়ের মনে করে যে তাদের স্বামী তাদের সন্তানদের জন্ম দেখতে ঘৃণা করবে। কিন্তু, বিপরীতভাবে, জ্যোডেনের বলেছেন যে এটি দেখে পিতারা সবচেয়ে অবাক এবং বাকরুদ্ধ হয়।

admin-panel-image-870a545d-5ba1-4537-aa3d-0e6181817d69-1521784110666_uemddp এই পিতা যা করলেন তা দেখে আপনি অবাক হতে বাধ্য!

জ্যোডেন বলেছেন যে শিশুর জন্মের ক্ষেত্রে তিনি আরো বেশি করে পিতার অংশগ্রহণ দেখতে চায়। এইটা বলার অপেক্ষা রাখে না যে সে মা দের কে ধরে না -পিতার সাথে সন্তানের দেখা হওয়ার প্রথম মুহূর্ত ক্যামেরা বন্দি করার পর তিনি মা এর দিকে ক্যামেরা ঘোরান।

জ্যোডেন এই প্রথম মা সন্তান কে জড়িয়ে আছে এমন ছবি তোলেন এবং মা ও শিশুর প্রথম বারের যোগাযোগ তিনি দেখেন। তিনি বলেন , “শিশুকে এই পৃথিবীতে আনার জন্য দুজনের কঠোর পরিশ্রম দেখে আমি খুবই আনন্দিত। ”

 

Loading...

Comments

comments