TOP বিনোদন

এক্স বয়ফ্রেন্ড শাহিদের মুখোমুখি করিনা, গুঞ্জন বি টাউনে

Loading...

২০০৭ সালে ‘যব উই মেট’-এর শুটিং চলার সময়ই সম্পর্ক ভেঙে যায় শাহিদ-করিনার। ওই সময় নাকি শাহিদ-করিনাকে একসঙ্গে নিয়ে শুটিং করাতে বেশ বেগ পেতে হয় পরিচালককে। তারপর কেটে গিয়েছে বেশ কিছু বছর। সইফ আলি খানকে বিয়ে করে করিনা যেমন নবাব ঘরণী হয়েছেন, তেমনি মীরা রাজপুতকে বিয়ে করে সংসারী হয়েছেন শাহিদও। দু’জনেই নিজের সংসার নিয়ে ব্যস্ত থাকলেও, মাঝে মধ্যেই শাহিদ-করিনাকে নিয়ে তত্পর হয়ে পড়ে পেজ থ্রি। এবারও তার ব্যতিক্রম হয়নি।

শোনা যাচ্ছে, সম্প্রতি এক জনপ্রিয় ফটোগ্রাফারের সঙ্গে শুট করছিলেন করিনা। ওই সময় সেখানে হাজির হন শাহিদ। প্রত্যক্ষদর্শীদের বয়ান অনুযায়ী, সেখানে শাহিদ – করিনাকে দেখা গিয়েছে হালকা মুডে। দু’জনকে বেশ কিছুক্ষণ রসিকতা করতেও দেখা যায়।

সূত্রের খবর অনুসারে, করিনার সঙ্গে প্রথম কথা বলেন শাহিদই। করিনার পরবর্তী সিনেমা ‘বেগম সাহেবা’-র পোশাক নিয়ে মজা করে কিছু কথা বলেন শাহিদ। যা শুনে হেসে ফেলেন সইফ আলি খানের দ্বিতীয় স্ত্রী।
সইফ-করিনার ব্রেকআপ নিয়ে যতই গুঞ্জন ছড়াক না কেন, তাঁরা যে একে অপরের বেশ ভাল বন্ধু, তা কিন্তু ফের প্রমাণ করলেন তাঁরা।
এদিকে শোনা যায়, শাহিদ কাপুরের সঙ্গে করিনার বিচ্ছেদের মূলে ছিলেন না কি করিনার মা ববিতা কাপুর। শাহিদকে কোনও দিনই পছন্দ করতেন না তিনি। আর সেই কারণেই বেবোর সঙ্গে শাহিদের সম্পর্ক থাকুক, তা নাকি কখনও মেনে নিতে পারেননি ববিতা। আর সেই কারণেই শেষে তিক্ততার মধ্যে দিয়ে বিচ্ছেদ হয় শাহিদ-করিনার।

সুত্র ঃ ২৪ ঘণ্টা

আরও পড়ুন

বাঁধ ভাঙল উষ্ণতা, মুক্তি পেল রাগিনী এম এম এস রিটার্নসের ট্রেলার! দেখুন ট্রেলারটি

নতুন বছরে এই ৫টি খাদ্যবস্তুকে আপনার মেনুতে রাখুন, বদলে যাবে ভাগ্য

আগামী ৩০ বছরের মধ্যে হারিয়ে যেতে পারে চকোলেট, আশঙ্কা বিশেষজ্ঞদের

আগামী ২৯ জানুয়ারি পাঁচ লক্ষ গরিব মানুষের হাতে বাড়ির চাবি তুলে দেবেন মমতা।

Loading...

Comments

comments