TOP লাইফস্টাইল

চাইনিজ অ্যাস্ট্রোলজি অনুযায়ী ২০১৮-তে জন্মালে মানুষের মধ্যে থাকবে কুকুরের বৈশিষ্ট্য

Loading...

চাইনিজ অ্যাস্ট্রোলজিতে এক একটি বছর এক একটি পশু নির্দেশ করে৷ সেই পশুর নিদির্ষ্ট গুণাবলীর উপর নির্ভর করে সেই বছরটি কেমন যাবে৷ চাইনিজ অ্যাস্ট্রোলজি মতে ২০১৮ বছরটি নির্দেশ করছে কুকুর৷ যা শুভ বলে মনে করে চাইনিজরা৷ এর আগে ১৯৮২, ১৯৯৪, ২০০৬, ২০১৮ অর্থাৎ প্রতি বারো বছর অন্তর কুকুর বর্ষটি ফিরে আসে৷ আগামী ২০৩০ সাল কুকুর বর্ষকে নির্দেশ করবে৷

চাইনিজ রাশিচক্রের ১১তম পশু কুকুর৷ এই বছর যারা জন্ম গ্রহণ করবে তাদের সকলের মধ্যে এই পশুর কিছু না কিছু চারিত্রিক বৈশিষ্ট থাকবে৷

কুকুরের বৈশিষ্ট্য:  এরা খুব সৎ এবং প্রভু ভক্ত হয়৷ সতর্ক এবং সাবধানী৷ যাদের এরা ভালোবাসে তাদের জন্য নিজেকে উজার করে দেয়৷ সবসময় অপরকে সাহায্য করতে চায়৷ কিন্তু এদের সাথে কেউ ছল চাতুরী করলে খুব কষ্ট পায়৷ সাধারণত এদের শরীর স্বাস্থ্য ভালো হয়৷ সবসময় হাসি খুশি থাকার চেষ্টা করে৷ অপরকেও খুশি করতে চায়৷

২০১৮ সালটি কেমন যাবে?
বিশ্বের অনেক গুরুত্বপূর্ণ বিষয় দৃষ্টি আকর্ষণ করবে৷ যারা অবহেলিত, নিপীড়িত, কষ্টে জর্জরিত, সমাজ থেকে বিচ্ছিন্ন তারা নতুন করে বাঁচার আশা পাবে৷ আগামী বছর এই সব ক্ষেত্রে কিছু শুভ পরিবর্তন নিয়ে আসবে৷ মানবতা প্রাধান্য পাবে৷ মানুষের জীবন যাপনের অবস্থার উন্নতি হবে৷ সমাজে অনেক পরিবর্তন আসবে৷ ধনী ও দারিদ্র্যের মধ্যে একটা সমতা বজায় থাকবে৷ যা কিছু গোপন বা লুকানো আছে সেগুলি প্রকাশ্যে আসবে৷

তবে আর্থিক দিক থেকে আগামী বছরটি ভালো মন্দ মিশিয়ে যাবে৷ বেশ কিছু আর্থিক সংস্থায় বিপদ ঘনিয়ে আসতে পারে৷ স্টক মার্কেটের মতো জায়গায় বিনিয়োগ করার আগে দুবার ভেবে এগোলে ভালো৷ তবে আর্থিক মন্দা যেমন দেখা দেবে তেমনই আর্থিক বৃদ্ধিও নির্দেশ করবে৷

সাধারণত কুকুরদের সঙ্গে খরগোশ, ঘোড়া এবং বাঘের ভালো মিল হয়৷ কিন্তু ড্রাগন, ভেড়া এবং মুরগীর সঙ্গে এদের মানসিকতা খাপ খায় না৷ ডগ ইয়ার ১৬ই ফেব্রুয়ারী ২০১৮ থেকে শুরু হবে৷ ২০১৯ সালের ৪ই ফেব্রুয়ারি পর্যন্ত থাকবে৷

ডগ ইয়ারে যারা জন্মগ্রহণ করেছেন তাদের শুভ সংখ্যা: ৩,৪,৯
শুভ রং: লাল, সবুজ, রাণি
শুভ ফুল: গোলাপ, অর্কিড
শুভ দিক: পূর্ব

অশুভ সংখ্যা: ১,৬,৭
অশুভ রং: নীল, সাদা ও সোনালী
অশুভ দিক: দক্ষিণ-পূর্ব৷

 সূত্র ঃ কলকাতা ২৪*৭

আরও পড়ুন

মাও অধ্যুষিত ছত্তিশগড়ে ৬৭১ কোটি টাকার বিনিয়োগ করতে চলছে পতঞ্জলি

ঋতুস্রাবের সময় মহিলাদের মন্দিরে কেন প্রবেশ করতে দেওয়া হয় না জানেন?

ধোনির ‘হেলিকপ্টার’ শটের ফ্যান তারকা এবং রেসলার রক

গাছ থেকে স্যানিটারি ন্যাপকিন বানিয়ে নজির সৃষ্টি করল দুই ছাত্র

Loading...

Comments

comments